04 सितंबर 2020

funny jokes in bengali

Also Read

funny jokes in bengali

 স্ত্রী রাগ করে বাপের বাড়ি চলে গেছে।

স্বামীর ফোন পেয়ে বলল-

স্ত্রী: কতবার বলব যে, আমি আর বাপের বাড়ি থেকে তোমার বাড়ি যাবো না। তবুও কেন প্রতিদিন ফোন করো? 

স্বামী: প্রতিদিন ভয় পাই, যদি সিদ্ধান্ত পাল্টাও। তাই ফোন করে নিশ্চিত হয়ে নেই।



জামাল: ভাই আপনার ছেলে-মেয়ে কয়টি?

বাবুল: বেশি না ভাই, মাত্র দশটা।

জামাল: বলেন কি, আপনার দশটা ছেলে-মেয়ে! পরিবার পরিকল্পনা করেন নাই?

বাবুল: হ্যাঁ, আমার তো পরিকল্পিত পরিবার। দু’টির বেশি একটিও নয়।

জামাল: তাহলে দশটি সন্তান হলো কী করে?

বাবুল: আমার বউ পাঁচটা।


funny jokes in bengali

এক কয়েদি দীর্ঘদিন ধরে কারাগারে বন্দি। কিন্তু কোনো দিন কেউ তাকে দেখতে এলো না। তাই একদিন জেলার তাকে বলছেন-

জেলার: ছুটির দিনে দেখি সবারই আত্মীয়-স্বজন দেখা করতে আসে। তোমার কেউ আসে না কেন?

কয়েদি: কী করে আসবে স্যার?

জেলার: কেন? তোমার কেউ নেই বুঝি?

কয়েদি: আছে স্যার, তারা সবাই তো দেশ-বিদেশের ভিন্ন ভিন্ন কারাগারে বন্দি রয়েছে।



ক্লাসে এসে ছাত্রদের না পড়িয়ে ঘুমানোর জন্য খ্যাতি আছে এক শিক্ষকের। 

অলস আর ফাঁকিবাজ স্বভাবের সেই শিক্ষক একদিন ছাত্রদের ঘুম বিষয়ে উপদেশ দিচ্ছিলেন ক্লাসে-

শিক্ষক: দেখ বাচ্চারা, বেশি ঘুমানো কিন্তু ভালো নয়। এই আমাকে দেখ! আমি দিনে আট ঘণ্টার বেশি ঘুমাই না।

ছাত্র: কিন্তু স্যার, স্কুল তো মাত্র ছয় ঘণ্টার, বাকি দুই ঘণ্টা কোথায় গিয়ে ঘুমান!


bangali jokes

বস: আপনি কি বিবাহিত?

প্রার্থী: কেন স্যার?

বস: এ অফিসে অবিবাহিতদের চাকরি দেওয়া হয় না।

প্রার্থী: স্যার, আপনি বিবাহিত ছাড়া কাউকে চাকরি দেন না কেন?

বস: কারণ, বিরামহীন বেইজ্জতি নিরবে সহ্য করার পূর্ব অভিজ্ঞতা শুধু এদেরই থাকে!



শিক্ষক: ক্লাসে আইসা খালি ঘুমাস? ফাঁকিবাজ কোথাকার!

ছাত্র: না স্যার! আমি ঘুমাইলাম কই!

শিক্ষক: ঘুমাস নাই! ঠিক আছে। বান্দরের ইংরেজি কি বল!

ছাত্র: মাঙ্কি, স্যার!

শিক্ষক: আমার সামনে নকলবাজি হচ্ছে? বই দেখে উত্তর দিচ্ছিস!

ছাত্র: না স্যার, বই দেখি নাই। আমি তো আপনার মুখ দেইখাই উত্তর দিছি!


new bengali jokes

শিক্ষক: বল তো পৃথিবীতে সবচেয়ে গরিব কে?

পিন্টু: স্যার, নিশ্চিত কইরা কইতে পারি না, তবে...

শিক্ষক: অনিশ্চিত করেই বল, শুনি!

পিন্টু: স্যার, যারা ফেসবুকে নিজের ছবি দিয়া কয়, পিকটা কেমন হলো বলুন?

শিক্ষক: তারা গরিব হয় কিভাবে?

পিন্টু: কারণ তাদের ঘরে একটা আয়নাও নাই...



স্ত্রী: তোমাকে একটা কথা জানাতে চাই।

স্বামী: বলো।

স্ত্রী: তুমি আবার রাগ করো না যেন।

স্বামী: বলো না, কী এমন কথা!

স্ত্রী: তোমার এক বন্ধু আমার খুব প্রশংসা করে। বলে, ‘ভাবি, আপনি যা সুন্দরী না’।

স্বামী: বুঝেছি, ও তো পিয়াল।

স্ত্রী: তুমি চিনলে কীভাবে?

স্বামী: ও তো ভাঙ্গারি ব্যবসায়ী! পুরোনো-বাতিল সব জিনিসই ওর কাছে ভালো!


latest jokes in bengali

শিক্ষক: পিন্টু বলো তো পোস্ট মাস্টার কাকে বলে?

পিন্টু: স্যার, আগের দিনে এলাকার পোস্ট অফিসের প্রধানকে পোস্ট মাস্টার বলা হতো।

শিক্ষক: আর এখন কী বলা হয়?

পিন্টু: এখন ফেসবুক-টুইটারে যারা পোস্ট দিতে ওস্তাদ, তাদের পোস্ট মাস্টার বলা হয়...



স্ত্রী: বলো তো আমাকে কেমন দেখাচ্ছে?

স্বামী: অনেক সুন্দর লাগছে!

স্ত্রী: এভাবে না, ঠিক কতটুকু সুন্দর লাগছে বলো...

স্বামী: বিউটিফুল, একদম যেন পরী! এত বেশি ভালো দেখাচ্ছে যে, মন চাইতেছে আরেকটা নিয়া আসি!


bangla hasir joks

পল্টু তার স্ত্রীকে নিয়ে এক কফিশপে গেছে-

পল্টু: কফিটা তাড়াতাড়ি শেষ করো, ঠান্ডা হয়ে যাচ্ছে।

স্ত্রী: হোক, সমস্যা কী?

পল্টু: আরে বোকা! মূল্যতালিকা দেখনি?

স্ত্রী: দেখেছি তো। তাতে কী?

পল্টু: আরে বোকা, হট কফি ২০ টাকা, কোল্ড কফি ৫০ টাকা। ঠান্ডা হয়ে গেলে অযথা ৩০ টাকা বেশি দিতে হবে! জলদি খেয়ে নাও তো!



উকিল: আচ্ছা, আপনি ওই লোকের ঘড়ি চুরি করলেন কেন?

মক্কেল: না! আমি তো চুরি করিনি। তিনি নিজেই আমাকে ঘড়িটি দিয়েছেন।

উকিল: কী বলছেন! তিনি কখন আপনাকে ঘড়িটি দিলেন?

মক্কেল: কেন? আমি যখন আমার বন্দুকটি দেখালাম!

कोई टिप्पणी नहीं: